পানির স্তর নিচে নেমে যাওয়ায় পানি সংকট দেখা দিয়েছে নেত্রকোনার বিভিন্ন হাওরে

0

পানির স্তর নিচে নেমে যাওয়ায় পানি সংকট দেখা দিয়েছে নেত্রকোনার বিভিন্ন হাওরে। এছাড়া হাওরের নদী-নালা ভরাট হয়ে যাওয়ায় জমিতে সেচ দিতে বিপাকে পড়ছেন কৃষকরা। ফলে হাওরে বোরো আবাদকমছে।এতে উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা কমার আশংকা বিশেষজ্ঞদের। তাই অন্য ফসল চাষের পরামর্শ দিচ্ছে কৃষি বিভাগ। তব এ নিয়ে আশংকার কারণ নেই বলে জানান জেলা প্রশাসক।

শস্য ও মৎস্য ভান্ডার হিসেবে খ্যাত নেত্রকোনা জেলা। এ জেলার বেশিরভাগ মানুষ কৃষির ওপর নির্ভরশীল। এবার চলতি ইরি-বোরো মৌসুমে হাওরে পানি কমার সাথে সাথে শুরু হয়েছে বোরো আবাদ। ব্যস্ত সময় পার করছে হাওর পাড়ের কৃষকরা। তবে জলবায়ুর পরিবর্তনের ফলে পানির স্তর নিচে নেমে যাওয়ায় হাওরে পানি সংকট তৈরি হয়েছে। এতে ব্যহত হচ্ছে বোরো ধান চাষ। একমাত্র বোরো ফসল রক্ষায় পাওয়ার পাম্পও ব্যবহার করছে কৃষকরা। এতে গুনতে হচ্ছে অতিরিক্ত টাকা।

কৃষি বিভাগের তথ্যমতে নেত্রকোনা জেলায় হাওর রয়েছে ১১০টি, আবাদি জমির পরিমান ১ লাখ ৮৫ হাজার হেক্টর, কৃষক পরিবার রয়েছে ৪ লাখ, প্রতি বছর ধান উৎপাদন হয় ১০ লাখ মেট্রিকটন। তাই পানি সংকট সমাধানে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানান এই কৃষি গবেষক।

পানির সংকটের কারণে অন্য ফসল চাষ করার পরামর্শ দিয়েছে জেলা কৃষি বিভাগ। আর সংকট নিরসনে আশার কথা জানালেন জেলা প্রশাসক।

শিগগির উর্ধতন কর্তৃপক্ষ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়ে হাওরের কৃষকদের সাহায্যে এগিয়ে আসবে, এমনটিই প্রত্যাশা নেত্রকোনাবাসীর।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন