বিএনপিকে নির্বাচন থেকে দুরে রাখতেই ‘রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে’ মিথ্যা অভিযোগ

0

বিএনপি’র সিনিয়র নেতাদের অভিযোগ, তাদের ভাবমূর্তি নষ্ট এবং বিএনপিকে নির্বাচন থেকে দুরে রাখতেই ‘রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে’ মিথ্যা অভিযোগ এনেছে দুদক। নয়াপল্টনে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে, দলটির নেতারা অভিযোগ করেন, বিভিন্ন ব্যাংক লুট ও অর্থনীতির বেহালদশা থেকে মানুষের দৃষ্টি সরাতেই– দুদক বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছে। প্রতিষ্ঠানটি সরকারের এজেন্ট হয়ে কাজ করছে বলেও মন্তব্য করেন বিএনপি নেতারা।

বিএনপি’র শীর্ষ নয় নেতার সন্দেহজনক অর্থ লেনদেনের দুদকের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে, এই জরুরি সংবাদ সম্মেলন ডাকেন, দলটির সিনিয়র নেতারা। শুরুতেই দুর্নীতি দমন কমিশনের অভিযোগ ভিত্তিহীন দাবি করেন, বিএনপি নেতা ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন। সম্মানহানী করতেই তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়েছে বলে দাবি অন্য নেতাদের। তাদের অভিযোগ, আবারো একতরফা নির্বাচন করতেই সরকার দুদককে দিয়ে বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে অবৈধ অর্থ উপার্জনের অভিযোগ এনেছে। এর মাধমে– জনগণের দৃষ্টি অন্যদিকে ঘোরাতে চায় সরকার।

দুদকের অভিযোগ ‘বানোয়াট ও মিথ্যা’ দাবি করে প্রতিষ্ঠানটিকে ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান জানান, বিএনপির সিনিয়র নেতারা। নইলে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারিও দেন তারা। এদিকে, জাতীয় প্রেসক্লাবে এক আলোচনায় ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ অভিযোগ করেন, দুদক সরকারের এজেন্ট হিসেবে কাজ করছে। বিএনপিকে যতই নির্বাচনের বাইরে রাখার চেষ্টা করা হোক, তা ব্যর্থ হবে বলেও দাবি করেন, বিএনপি নেতারা।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন