বাজেটর দেড় লাখ কোটি টাকার ঘাটতি মিটবে ঋণে

0

৫ লাখ ২৩ হাজার ১৯০ কোটি টাকা সম্ভাব্য আকার ধরে ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেট পেশ হবে আজ। বিকেল ৩টায় একাদশ জাতীয় সংসদের তৃতীয় অধিবেশনে এই বাজেট পেশ করবেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। নতুন ভ্যাট আইন, আর আয়ের চেয়ে দেড়গুণ বেশি ব্যয় থাকছে এবারের বাজেটে। প্রায় দেড় লাখ কোটি টাকার ঘাটতি মেটানো হবে ঋণ করে, যা বাজেটের এক-তৃতীয়াংশের কাছাকাছি। এতে টান পড়বে বেসরকারি ঋণপ্রবাহে। টানা তৃতীয় মেয়াদে ক্ষমতায় আসার পর শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগ সরকারের এই বাজেটের শিরোনাম করা হয়েছে ‘সমৃদ্ধির সোপানে বাংলাদেশ, সময় এখন আমাদের’।

নতুন বাজেটের প্রায় দেড় লাখ কোটি টাকার ঘাটতি মেটানো হবে দেশী-বিদেশী উৎস থেকে ঋণ নিয়ে। এমন প্রেক্ষাপটে দেশে বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থান কমে যাওয়ার কারণেই প্রত্যাশার চেয়ে সরকারের রাজস্ব আয়ে বিপুল ঘাটতি তৈরি হচ্ছে বলে মনে করছে ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআই। তাই জনমুখী বাজেট করতে, আগে বিনিয়োগ-বান্ধব বাজেটের আহ্বান এফবিসিসিআই সভাপতির।

এদিকে, দুর্নীতি ও অপচয় রোধ এবং সুশাসন ছাড়া বড় বাজেট থেকে তেমন কোনো কল্যাণ আসবে না মন্তব্য করে উন্নয়ন বাজেটকে জবাবদিহিমূলক করার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের।

বাজেটকে অর্থবহ করতে সংসদে অন্তত ৩ মাস বাজেট ও কর নিয়ে আলোচনা এবং বাজেট প্রণয়নেও ব্যাপক সংস্কার আনার পরামর্শ আকবর আলী খানের।

এবারের বাজেটে তিন লাখ ২০ হাজার কোটি টাকা রাজস্ব ব্যয়ের সাথে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচি- এডিপিতে বরাদ্দ দু’ লাখ ২ হাজার ৭২১ কোটি টাকা। আর মূল্যস্ফীতি সাড়ে ৫ শতাংশের নীচে আটকে রাখার পরিকল্পনায় জিডিপি প্রবৃদ্ধির আশা ৮ দশমিক ২ শতাংশের।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন