জয় দিয়ে বিপিএলের সপ্তম আসর শেষ করলো রংপুর রেঞ্জার্স

0

জয় দিয়ে বিপিএলের সপ্তম আসর শেষ করলো রংপুর রেঞ্জার্স। নিজেদের শেষ ম্যাচে ঢাকা প্লাটুনকে হারিয়েছে ১১ রানে। রংপুরের দেয়া ১৫০ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে ৯ উইকেটে ১৩৮ রান তুলে মাশরাফির ঢাকা প্লাটুন। দু’টি করে উইকেট নিয়েছেন তাসকিন আহমেদ, আরাফাত সানি ও জুনায়েদ খান।

শুরু আর শেষের মধ্যে বিস্তার ফারাক রংপুর রেঞ্জার্সের। যেখানে বড় হার দিয়ে আসর শুরু করেছিলো, সেখানে শেষটা ঠিক উল্টো। নিজেদের শেষ ম্যাচে ঢাকা প্লাটুনকে ১১ রানে হারিয়ে আসর শেষ করলো তাসকিন মোস্তাফিজরা। তবে, আগেই বিদায় নিশ্চিত হওয়ায় এ জয়টা, শুধুই আনুষ্ঠানিকতার রংপুর রেঞ্জার্সের।

১৫০ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই ছন্নছড়া ঢাকার ব্যাটসম্যানরা। যেখানে এক তামিম ছাড়া প্রায় সবাই ফ্লপ। সর্বোচ্চ ৩৪ রানের ইনিংসটি দেশ সেরা ওপেনারের।

শেষের চেস্টা চালিয়েছিলেন মাশরাফি বিন মোর্ত্তজা। কিন্তু শেষ ওভারে ৬ বলে২৩ রানের সমীকরণ মেলাতে পারেননি ঢাকার অধিনায়ক।

এর আগে, মান বাঁচানোর ম্যাচে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নামে রংপুর রেঞ্জার্স। বরাবরের মতো এ ম্যাচেও অকার্যকর রংপুরের উদ্বোধনী জুটি। মাশরাফির পেসে ব্যক্তিগত ১০ রানে কাটা পড়েন শেন ওয়াটসন।

দলীয় পঞ্চাশের আগে আরো দুই টপ অর্ডারের বিদায়। যেখানে মেহেদির শিকার ক্যামেরন ডেলপোর্ট আর ইনফর্ম নাইমকে ফেরান শাদাব খান।

চতুর্থ উইকেটে প্রতিরোধ গড়ার চেস্টা চালান লুইস গ্রেগরি ও আল আমিন। তবে, এ দুয়ের ৪৯ রানের জুটি বিপর্যয় হয়তো কাটিয়েছে কিন্তু বড় সংগ্রহের উৎসাহ যোগাতে পারেনি। প্রতিরোধ ভাঙ্গে লুইস গ্রেগরির ৪৬ রানের বিদায়ে।

পঞ্চম উইকেটে জহুরুলকে নিয়ে আবারো লড়াই চালান আল আমিন। কিন্তু আল আমিন ৩৫ ও জহুরুলের ২৮ রানের বিদায় আবারো হোচট খায় রংপুর। থিসারা পেরেরার শেষ ওভারে ৩ বলে ৪ উইকেট হারিয়ে শেষ পর্যন্ত ৯ উইকেটে ১৪৯ রানের পুঁজি পায় রংপুর রেঞ্জার্স।

জয় পেলেও আক্ষেপ আর হতাশা নিয়ে বিপিএলের সপ্তম আসর শেষ করলো রংপুর রেঞ্জার্স। বিপরীতে ১১ রানের হারে কোয়ালিফায়ারের পথ দীর্ঘয়িত হলো ঢাকা প্লাটুনের।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন