৩ দিনের রিমান্ডে মডেল পিয়াসা ও মৌ

0

মাদক মামলায় মডেল পিয়াসা ও মৌয়ের ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট শহিদুল ইসলাম শুনানি শেষে রিমান্ডের আদেশ দেন। তাদের বিরুদ্ধে ব্ল্যাকমেইল করে অর্থ আদায়ের অভিযোগ রয়েছে। এছাড়া প্রতারণার অভিযোগে রাজধানীর মিরপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার ডা. ইশরাত রফিক ঈশিতা ও তার সহযোগী মোহাম্মদ শহিদুল ইসলামের বিরুদ্ধে পৃথক দুই মামলায় ৬ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রোববার রাতে বারিধারার একটি বাসায় অভিযান চালিয়ে ফারিয়া মাহাবুব ও মোহাম্মদপুরে বাসায় অভিযান চালিয়ে মরিয়ম আক্তার মৌকে গ্রেপ্তার করে গোয়েন্দা পুলিশ। উদ্ধার করা হয় বিদেশি মদ ও ইয়াবা।

পুলিশ জানায়, উঠতি বয়সের ছেলেদের নিয়ে এসে মাদক দ্রব্যাদি সেবন করিয়ে আপত্তিকর ছবি তুলে, ভুক্তভোগীদের কাছ থেকে টাকা আদায় করতেন এই দুই নারী।

সোমবার দুপুরে পিয়াসার বিরুদ্ধে গুলশান থানায় ও মোহাম্মদপুর থানায় মৌয়ের বিরুদ্ধে পৃথক দুটি মামলা দায়েরের পর বিকেলে তাদের আদালতে তোলা হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। আসামিপক্ষের আইনজীবীরা রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিনের আবেদন করেন। শুনানি শেষে আদালত ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

২০১৭ সালে বনানীর রেইনট্রি হোটেলে দুই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনার সময় মডেল পিয়াসার নাম উঠে আসে। ওই মামলার অভিযুক্ত আসামি শাফাত আহমেদের স্ত্রী হিসেবে দাবি করেছিলেন মডেল পিয়াসা।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন