রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডে ঠেকানো যাচ্ছে না শিক্ষার্থী ঝরে পড়ার হার

0

রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডে ঠেকানো যাচ্ছে না শিক্ষার্থী ঝরে পড়ার হার। জেএসসি থেকে এইচএসসি পর্যন্ত অর্ধেক শিক্ষার্থীরই ছিটকে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সরকারিভাবে নানা প্রণোদনা দেয়া হলেও ঝরেপড়া রোধে কোনো উদ্যোগ নেই বোর্ড কর্তৃপক্ষের। বিশ্লেষকরা বলছেন, শহর ও গ্রামের ভেদাভেদ ভাঙ্গতে সবার জন্যই অভিন্ন সুযোগ-সুবিধার শিক্ষা নিশ্চিত করতে হবে

২০১৮ সালে রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডে এসএসসি পাশ করে এক লাখ ৬৬ হাজার ৮৬৫ জন শিক্ষার্থী। একই সংখ্যক শিক্ষার্থী এবার এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়ার কথা। কিন্তু রেকর্ড বলছে, দু’বছরের মাঝেই হারিয়ে গেছে সাড়ে ১২ হাজার শিক্ষার্থী। এর আগে ২০১৪ সালে জেএসসিতে অংশ নেয় দু’লাখ এক হাজার ৯৬ জন শিক্ষার্থী। এই ব্যাচ থেকে ২০১৭ সালে এসএসসি পাস করে, এক লাখ ৫১ হাজার ৪৭০জন। আর ২০১৯ সালে এসে এইচএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয় এক লাখ ১৩ হাজার ৫৫০ জন। এইচএসসি পাস করার আগেই ঝরে গেছে সাড়ে ৪৩ শতাংশ শিক্ষার্থী।

বিশ্লেষকরা বলছেন, গ্রামের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার উপবৃত্তি দিলেও শহরের দরিদ্র শিক্ষার্থীরা এ সুযোগ থেকে বঞ্চিত। ফলে পড়াশোনা ফেলে অনেকেই ছুটছেন জীবিকার সন্ধানে।আর শিক্ষা বোর্ডের কাছে স্কুল-কলেজের কোনো জবাবদিহিতা না থাকায় ঝরেপড়া ঠেকাতে কোনো উদ্যোগই নেয়া হয় না- বলে জানান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক।কর্মসংস্থানের আশায় স্কুল থেকেই উল্লেখযোগ্য সংখ্যক শিক্ষার্থী কারিগরি শিক্ষার দিকে চলে যাচ্ছে। তাই আগামীতে সাধারণ শিক্ষাতেও কারিগরি বিষয় অন্তর্ভূক্ত করার কথা ভাবা হচ্ছে বলে জানিয়েছে শিক্ষা বোর্ড।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন