মৃত্যুর ১০দিন পর চিরনিদ্রায় শায়িত করা হলো কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোরকে

0

মৃত্যুর ১০দিন পর চিরনিদ্রায় শায়িত করা হলো কিংবদন্তী কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোরকে। বিদেশ থেকে সন্তানেররা ফেরার পর বুধবার দুপুরে রাজশাহীতে তাঁকে সমাহিত করা হয়। এরআগে ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী কিশোরের অন্ত্যোষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন হয় সিটি চার্চে। সেখানে শেষবারের মতো তাকে শ্রদ্ধা জানাতে জড়ো হোন ভক্তরা। দাবি উঠেছে, তাঁকে রাষ্ট্রীয় সম্মাননা প্রদানেরও।

অবেশেষ সকল অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে পৃথিবী থেকে চিরবিদায় নিলেন বাংলা গানের রাজপুত্র এন্ড্রু কিশোর। গেল ৬ জুলাই শেষনিঃশ্বাস ত্যাগ করলেও অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী ছেলে ও মেয়ের ফেরার অপেক্ষায় তার মরদেহ রাখা হয়েছিল হাসপাতালের হিমঘরে। তারা ফেরার পর সকালে কিশোরের মরদেহ নেয়া হয় সিটি চার্চে। সেখানে খ্রিস্টান ধর্মের আচার শেষে শ্রদ্ধা জানান বিভিন্ন ব্যক্তি, সংগঠন ও ভক্তরা।

সবার কণ্ঠেই ছিল চিরবিচ্ছেদের করুণ হাহাকার।

এন্ড্রু কিশোরকে শেষবারের মতো বিদায় জানাতে ভক্তদের অনেকেই ছুটে এসেছিলেন দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে। তাদেরই একজন টাঙ্গাইলের রবিউল ওরফে রবি কিশোর। এসএটিভির গানের রিয়েলিটি শো বাংলাদেশী আইডলের প্রতিযোগী।প্লেব্যাক গানের এই সম্রাটের চিরবিদায়ের ক্ষণে তার এমনই বুকভাঙা আর্তনাদ।

শেষযাত্রার কফিনে শ্রদ্ধা জানাতে হাজির হয়েছিলেন বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতাকর্মীরাও। এসময় তারা কিশোরকে রাষ্ট্রীয় সম্মাননায় ভূষিত করারও দাবি তোলেন।

চার্চের আনুষ্ঠানিকতা শেষে এন্ড্রু কিশোরের শেষ ইচ্ছে অনুযায়ী খ্রিস্টান কবরস্থানের প্রথম সারিতেই ঝাউগাছের নিচে সমাহিত করা হয়।

রাজশাহীতে জন্ম নেওয়া এন্ড্রু কিশোর প্রায় ১৫ হাজার গানের কণ্ঠ দিয়েছেন। আট বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া এই শিল্পী দীর্ঘদিন ক্যানসারে ভূগে অবশেষে হার মানেন জীবনের কাছে।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন