মানবপাচারকারী চক্রের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী

0

লিবিয়া ট্র্যাজেডি’র ঘটনায় রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় অভিযানে মানবপাচার চক্রের ৯ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে সিআইডি ও ডিবি পুলিশ । বাকি দালাল চক্র সদস্যদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। আলাদা সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার সৈয়দা জান্নাত আরা এবং ডিএমপির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার মো. আবদুল বাতেন।

গেল ২৮ মে লিবিয়ায় সাহারা মরুভূমি অঞ্চলের মিজদা শহরের ২৬ বাংলাদেশিকে গুলি করে হত্যা করে মানবপাচারকারী চক্র।এ ঘটনায় ১১ জন আহত হয় ।নিখোঁজও রয়েছে বেশ কয়েকজন ।

মর্মান্তিক এ ঘটনার পর দেশজুড়ে শুরু হয় তোলপাড়। মানবপাচারকারীদের গ্রেফতারে মাঠে নামে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

দুপুরে রাজধানীর মালিবাগে সিআইডি কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেশন বিভাগ-সিআইডি। দালাল চক্রের নারী সদস্য সানজিদাসহ সোহাগ হোসেন ও খালিদ চৌধুরীকে গ্রেফতার করার কথা জানান সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার সৈয়দা জান্নাত আরা।

আসামিদের বিরুদ্ধে পল্টন থানায় ২টি ও বনানী থানায় একটি মানবপাচার মামলা দায়ের করেছে সিআইডি। এছাড়া সারা দেশে মানবপাচারের ১২টি মামলা তদন্ত করছে সংস্থাটি।

এর আগে সকালে ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে ডিএমপি’র অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার মো. আবদুল বাতেন জানান, লিবিয়া ট্র্যাজেডির ঘটনায় রাজধানী বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে স্থানীয় দালাল, দেশীয় পাচারকারী ও লিবিয়া ক্যাম্পের মালিকসহ আরো ছয়জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

ইউরোপের বিভিন্ন দেশে নেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে অবৈধভাবে বিভিন্ন ঝুকিপূর্ণ পন্থায় লিবিয়া নিয়ে নিজস্ব ক্যাম্পে নির্যাতন করার কথাও জানান তিনি।

অবৈধপথে মানুষ পাঠানের ঘটনায় দেশে ২২টি মামলা করেছে ভুক্তভোগীরা। আর আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেফতার হয়েছেন ১৭ জন।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন