বিশ্বজুড়ে করোনার দ্বিতীয় ধাপ শুরু

0

বিশ্বজুড়ে করোনায় প্রাণহানি ১১ লাখ ছাড়িয়েছে। শনাক্তের সংখ্যা ৩ কোটি ৯০ লাখের বেশি। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছে ২ কোটি ৯২ লাখ মানুষ। এদিকে, বিশ্বজুড়ে করোনার দ্বিতীয় ধাপ শুরু হয়েছে। এরই মধ্যে পর্যুদস্ত হতে শুরু করেছে ইউরোপের বিভিন্ন দেশ। লকডাউন, কারফিউয়ের মতো কঠোর সিদ্ধান্ত বলবত করতে বাধ্য হচ্ছেন রাষ্ট্রপ্রধানরা। সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় কঠোর বিধিনিষেধের ওপর জোর দিচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে, জীবন রক্ষায় ইউরোপের বিভিন্ন দেশে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা আবারো জরুরী হয়ে পড়েছে। ইউরোপ যখন করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলা করছে তখনই এমন সতর্কবার্তা দিলো সংস্থাটি। আগামীকাল থেকে লন্ডনে ঘরোয়া সমাবেশের ওপর নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হচ্ছে। ফ্রান্সের ৯টি শহরে আরোপ করা হচ্ছে কারফিউ। বুধবার থেকে নেদারল্যান্ডসে চলছে চার সপ্তাহের আংশিক লকডাউন। চেক প্রজাতন্ত্রে প্রথমবারের মতো করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য তৈরি করা হয়েছে অস্থায়ী হাসপাতাল। করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে চেক প্রজাতন্ত্র, জার্মানি ও স্পেনের কাতালোনিয়ায়ও।
আশংকাজনক হারে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ার কারণে ইতালিতে বড়দিনকে সামনে রেখে তিন সপ্তাহের লকডাউন দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিকে নাপোলিসহ ক্যাম্পানিয়া বিভাগের স্কুল কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে এবং সব ধরনের উৎসবের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস এবং মার্সেলিসহ আরো সাতটি শহরে রাত্রিবেলার কারফিউ ঘোষণা করেছেন প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রন। ফ্রান্সে কারফিউ ভাঙলে হবে জেল-জরিমানা। দ্বিতীয় দফার করোনার ঢেউ সামলাতে কারফিউ সংশ্লিষ্ট এলাকাগুলোতে মোতায়েন থাকবে ১২ হাজার পুলিশ।

 

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন