নির্বাচনে, ৮৫ হাজার নতুন ভোটারের ভোট প্রদান নিয়ে তৈরী হয়েছে অনিশ্চয়তা

0

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে, ৮৫ হাজার নতুন ভোটারের ভোট প্রদান নিয়ে তৈরী হয়েছে অনিশ্চয়তা। ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হলেও চুড়ান্ত তালিকার সিডিতে নাম না আসায় এমন জটিলতা দেখা দিয়েছে। জেলা নির্বাচনী কর্মকর্তা বললেন, নতুন ভোটারদের ভাগ্য মার্চের প্রথম সপ্তাহে নির্বাচন কমিশনের বৈঠকের সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভর করছে। আর বিশেষজ্ঞরা বলছেন, নতুন ভোটাররা ভোট দিতে না পারলে, নাগরিক অধিকার লঙ্ঘিত হওয়ার পাশাপাশি কেন্দ্রে কমে যাবে ভোটার উপস্থিতি।

আগামী ২৯ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন। এবার ২০ লাখের বেশী নগরবাসী ভোট প্রদানের কথা থাকলেও, প্রার্থীদের কাছে সরবরাহ করা সিডিতে ভোটার আছে ১৯ লাখের কিছু বেশী। নির্বাচন কমিশন বলছে, সবশেষ অন্তর্ভুক্ত হওয়া অন্তত ৮৫ হাজার ভোটারের নাম সিডিতে আসেনি। ফলে তাদের ভোট দানের সুযোগ নিয়ে তৈরী হয়েছে জটিলতা। এখন তাদের ভাগ্য নির্ভর করছে কমিশনের সিদ্ধান্তের ওপর।
আর বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সবকটি নির্বাচনের আগে ভোটার তালিকা হালনাগাদ ও চুড়ান্ত করা নির্বাচন কমিশনের দায়িত্ব। কোন ব্যত্যয় ঘটলে, দায় নিতে হবে কমিশনকেই।

তবে আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা বললেন, সবাইকে নিয়ে সুষ্ঠু ও সুন্দর নির্বাচন অনুষ্ঠানের চেষ্টা করছেন তারা। সাম্প্রতিক সময়ের নির্বাচনগুলোতে কম ভোটার উপস্থিতির বাস্তবতায় নতুন ভোটাররা ভোট দিতে না পারলে, কেন্দ্রে ভোটার আরো কমে যাবে বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা। ফুটেজ-২
আপস..

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন