ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ রাসেলের আরো একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। ধানমন্ডি থানায় আরেকজন গ্রাহকের দায়ের করা মামলায় তার এই রিমান্ড মঞ্জুর হয়। এদিকে একই আবেদনে রাসেলের স্ত্রী শামীমা নাসরিনের রিমান্ড নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট হাসিবুল হক এ আদেশ দেন।

গত বৃহস্পতিবার ইভ্যালীর সিইও রাসেল ও তার স্ত্রী শামীমা নাসরিনের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে আরিফ বাকের নামের ইভ্যালীর এক গ্রাহক গুলশান থানায় একটি মামলা করেন। ওইদিন বিকেলে রাসেল ও শামীমাকে গ্রেফতার করে রেব। আরিফ বাকেরের মামলায় গত শুক্রবার প্রথমে মো. রাসেল ও তার স্ত্রী শামীমার তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদালত। এর মধ্যে ধানমন্ডি থানায় রাসেল দম্পত্তির বিরুদ্ধে আরেকটি মামলা করেন আরেকজন গ্রাহক। এই মামলায় মঙ্গলবার তদন্ত কর্মকর্তা সিএমএম কোর্টে ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। রিমান্ড শুনানীতে আসামী পক্ষের আইনজীবীরা রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিনের আবেদন করেন। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীরা এর বিরোধিতা করেন। উভয়পক্ষের শুনানি শেষে মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট হাসিবুল হক রাসেলের একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন এবং তার স্ত্রীর শামীমাকে রিমাণ্ডে না পাঠিয়ে জেল-হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।