অনুপ্রবেশের শঙ্কায় সীমান্তজুড়ে সতর্কাবস্থা

0

ভারতের আসামে নতুন নাগরিক তালিকায় বাদ দেয়া ১৯ লাখেরও বেশি বাসিন্দা সম্পর্কে সমালোচনার ঢেউ এখন আছড়ে পড়েছে বাংলাদেশেও। বিশ্লেষকরা বলছেন, ভোটের রাজনীতির কারণে বিজেপি সরকারের এমন সিদ্ধান্তে বিপুল সংখ্যক বৈধ নাগরিককে রাষ্ট্রহীনতার দিকে ঠেলে দেয়া হয়েছে। এর বিরুদ্ধে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক মহল এখনই সোচ্চার না হলে, রোহিঙ্গা ইস্যুর মতো বাংলাদেশের কাঁধে আরেকটি সংকট চাপিয়ে দেয়া হতে পারে। এদিকে, অনুপ্রবেশের শঙ্কায় কেবল আসামের নিকটবর্তীই নয়, দেশের উত্তরাঞ্চলের সীমান্তজুড়েই সর্বোচ্চ সতর্কাবস্থায় রয়েছে বিজিবি।

ভারতের নাগরিকপঞ্জি বা এনআরসি থেকে বাদ পড়া ১৯ লাখ মানুষ বিশেষ ট্রাইব্যুনালে আপিলের সুযোগ থাকলেও এই প্রক্রিয়ার সুবিধা কতজন নিতে পারবে- তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। বাদ পড়াদের বেশির ভাগই গ্রামাঞ্চলের দরিদ্র, অল্প শিক্ষিত বা নিরক্ষর । তাদের পক্ষে আপিল প্রক্রিয়ায় ঢোকা প্রায় অসম্ভব হয়ে পড়তে পারে বলে জানাচ্ছে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম।

বিশ্লেষকরা বলছেন, নাগরিকপঞ্জিতে বাদ পড়া ১৯ লাখেরও বেশি মানুষ হয়তো রাষ্ট্রহীন হয়ে পড়তে যাচ্ছেন। তবে ভারত যেসব কারণে এসব মানুষকে নাগরিকত্ব থেকে বাদ দিয়েছে তা ঐতিহাসিকভাবেই অগ্রহণযোগ্য। ভারত সরকারের এই সিদ্ধান্ত স্ববিরোধী।

এ বিষয়ে আন্তর্জাতিক মহল এখনই সোচ্চার না হলে রোহিঙ্গা ইস্যুর মতো আরেকটি সংকট তৈরি হতে পারে-এমন আশঙ্কাও করছেন তারা।

এদিকে, আসামে নাগরিকত্ব হারানো ব্যক্তিরা কোনোভাবেই যাতে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করতে না পারে সেজন্য উত্তরাঞ্চলের সীমান্তজুড়েও নিরাপত্তা জোরদার করার কথা জানিয়েছে বিজিবি।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন