২৮ বছর পর বিশ্বকাপ ফুটবলে জায়গা করে নিয়েছে মিশর

0

২৮ বছর পর বিশ্বকাপ ফুটবলে জায়গা করে নিয়েছে মিশর। যার প্রধান কারিগর মোহাম্মদ সালাহ। তাকে ঘিরেই বিশ্বকাপে স্বপ্ন দেখছে মিশরবাসী। দেশটির সব কিছুতেই যেন এখন সালাহ’র উপস্থিতি।

বিশ্ব ফুটবলে মেসি, রোনালদোর আধিপত্যের যুগে অন্য ফুটবলারের লাইমলাইটে আসার সুযোগ কোথায়। কিন্তু একজন ঠিকই নিজের প্রতিভা দিয়ে মেসি, রোনালদোর সাথে টেক্কা দিয়ে যাচ্ছেন। লিভারপুলের মিশরীয় ফুটবলার মোহম্মদ সালাহ। এ মৌসুমে ৪৪ গোল করে লিভারপুলকে নিয়ে গেছেন চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে। হয়েছেন আফ্রিকার বর্ষসেরা ফুটবলার। একই সাথে ইংল্যান্ডেরও সেরা ফুটবলার হয়েছেন।

বর্তমান সময়ে ভয়ঙ্কর এক ফিনিশার হিসেবে ধরা হয় তাকে। সেই সালাহ’র হাত ধরে ২৮ বছর পর বিশ্বকাপের টিকিট পেয়েছে মিশর। বাছাইপর্বে কঙ্গোর বিপক্ষে তার দুই গোল মিশরকে নিয়ে গেছে বিশ্বকাপের চূড়ান্ত পর্বে। তাই মিশরের প্রাণভোমরা এখন মোহাম্মদ সালাহ। মিশরবাসীর হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছেন এই ফুটবলার।

বিশ্বকাপ এগিয়ে আসছে। তাই মিশরের মানুষ সব কিছুতেই এখন সালাহ’র উপস্থিতি খুঁজছেন। নিজের ঘরে যে শো পিসটা রাখবেন সেখানেও থাকা চাই মোহাম্মদ সালাহ। শিশুদের খেলনা, লন্ঠন, বালিশ সব কিছুতেই সালাহ’র উপস্থিতি। বিক্রি বেড়ে যাওয়ায় দারুণ খুশী দোকানীরা।সালাহ শুধু একজন ফুটবলারই নয়, মিশরবাসীর কাছে ভিন্ন এক নাম। সে আমাদের কাছে সম্মানের। সে নিজেকে তৈরী করেছে, নিজেকে গড়ে তুলেছে। আমি মনে করে সব মিশরয়’র সালাহ’র মতো হওয়া উচিত।

ফ্যাশনেও যুক্ত হয়ে গেছেন মিশরের এই ফুটবলার। চুলের যে স্টাইল সেখানেও থাকতে হবে সালাহকে। সেলুনে খুব যত্ন করে চুল ছেটে মোহাম্মদ সালহ’র মুখমন্ডল বানিয়ে দেয়া হচ্ছে। বিশ্বকাপে কখনও কোন ম্যাচ জিততে পারেনি মিশর। সালাহ’কে ঘিরেই এবার আশায় বুক বেধেছে দেশটির মানুষ। গ্রুপ পর্ব পেরিয়ে মিশরকে দেখতে চায় দ্বিতীয় রাউন্ডে। আর সেটি করতে পারলে নিশ্চিত ভাবেই বলা যায় মেসি, রোনালদোর পাশাপাশি এবার ব্যালন ডি’অর –এর বড় দাবিদার হয়ে উঠবেন মোহাম্মদ সালাহ।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন