সরকার পালাবার পথ পাবে না

0

একটি অবৈধ নির্বাচনে মাধ্যমে নির্বাচিত হয়ে ক্ষমতা আকড়ে ধরে প্রমাণ করেছে, আওয়ামী লীগের কোন নৈতিকতা নেই। এমনই মন্তব্য বিএনপি নেতাদের। গেল নির্বাচনও জনগণ মেনে নেয়নি উল্লেখ করে, সরকারকে পদত্যাগ ও পুননির্বাচনের দাবি জানান তারা। তা না হলে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নির্বাচনের দাবিতে যে গণজোয়ার তৈরি হবে, তাতে সরকার পালাবার পথ পাবে না বলেও হুঁশিয়ারি দেন তারা। এসএটিভি’র সাথে একান্ত আলাপে এসব দাবি তুলে ধরেন বিএনপি নেতা গয়েশ্বর চন্দ্র রায় ও মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল।

গেল বছরের ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দিন থেকেই, অনিয়মসহ বিভিন্ন অভিযোগ তুলে পুননির্বাচনের দাবি জানিয়ে আসছে রাজপথের প্রধান বিরোধী দল বিএনপি। ওই নির্বাচনকে অবৈধ প্রমাণ করতে সারাদেশের প্রার্থীদের নিয়ে একাধিকবার গণশুনানীও করেছে তারা।

এমন প্রেক্ষাপটে পুননির্বাচনের দাবির পাশাপাশি দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে কারাগার থেকে মুক্ত করতে এরইমধ্যে বিভিন্ন কর্মসুচিও পালন করেছে বিএনপি। যদিও সরকারকে দাবি মেনে নিতে বাধ্য করতে তেমন কোনো কঠোর কর্মসুচি ঘোষণা করেনি তারা।

এই দুই ইস্যুতে দেশে বিদেশে সমালোচনা হলেও কোনো দাবিই মেনে নেয়নি আওয়ামী লীগ সরকার। এই প্রেক্ষাপটে পুননির্বাচন ও খালেদা জিয়ার মুক্তি ইস্যুতে বিএনপি সফল হতে পারবে কিনা এমন প্রশ্ন করা হয় এই দুই নেতার কাছে।

বিএনপি বর্তমান সংসদে যোগ দেবে কিনা, এমন প্রশ্নের জবাবে, ত্রিশ এপ্রিলের আগে এই বিষয়ে দলীয় ফোরামে সিদ্ধান্ত হবে বলে জানান তারা। তবে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও পুননির্বাচনের ইস্যূতে সরকার কোন শর্ত দিলে বিএনপি তা মানবে না বলেও জানান তারা।

তাদের মতে, সরকার নিজেদের যতই শক্তিশালী মনে করুক, জনগণ তাদের সাথে নেই। তাই জনগণের দাবির মুখে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও পুননির্বাচন দিতে সরকার বাধ্য হবে বলেও মনে করেন বিএনপি নেতারা।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন