মহাসড়কের ওজন স্কেলে আদায় করা হচ্ছে অতিরিক্ত জরিমানা

0

মহাসড়কের ওজন স্কেল পরিচালনায় জরিমানার ক্ষেত্রে আবারো নতুন নিয়ম চালু করেছে সড়ক ও জনপথ বিভাগ। নির্ধারিত ওজনের বাইরে প্রথম এক টনের জন্য ৫ হাজার ও পরবর্তী প্রতি টনে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা আদায় করা হচ্ছে। শ্রমিক ও মালিক সংগঠনগুলো বলছে, মহাসড়ক রক্ষার নামে রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় চাঁদাবাজি চলছে।

মহাসড়কগুলোতে একের পর এক অপরিকল্পিত ওজন স্কেল বসানো ও এগুলো পরিচালনার ক্ষেত্রে অদক্ষতার দেখা দেয়ায় জনমনে প্রশ্ন উঠেছে। তাই, মহাসড়ক থেকে জনভোগান্তির ওজন স্কেল বন্ধের দাবি শ্রমিকদের।

স্কেলের মাধ্যমে মহাসড়কে ওজন নিয়ন্ত্রণ চলছে কয়েক বছর ধরে। কিন্তু এখন পর্যন্ত সুনির্দিষ্ট কোন নীতিমালা হয়নি। তাই ইচ্ছে মতো জরিমানা আদায় করা হচ্ছে। সাম্প্রতি জরিমানা কয়েকগুণ বাড়ানো হয়েছে বলে জানান, সওজের এই কর্মকর্তা।

শ্রমিক ও পরিবহণ মালিকদের সংগঠনগুলো বলছে, বর্তমানে চাঁদাবজির আখরায় পরিণত হয়েছে স্কেলগুলো। তাই চাঁদাবাজি প্রতিরোধে নিজেদের প্রতিনিধি দিতে চায় তারা।

পরিবহণ শ্রমিক সংগঠনগুলো বলছে, জরিমানার পাশাপাশি স্কেল অপারেটরদের হয়রানির শিকার হচ্ছে তারা। গত দু’বছরে স্কেলের কর্মকর্তা ও তাদের সহযোগিদের হামলায় আহত হয়েছে অন্তত এক হাজার শ্রমিক, ভাংচুরের শিকার হয়েছে দু’হাজারেরও বেশি যানবাহন।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন