ভুটানের সাথে নৌ, স্বাস্থ্য, কৃষি ও পর্যটন খাতের উন্নয়নসহ পাঁচটি সমঝোতা স্মারক

0

ভুটানের সাথে নৌ, স্বাস্থ্য, কৃষি ও পর্যটন খাতের উন্নয়নসহ পাঁচটি সমঝোতা স্মারক হয়েছে। সকালে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও সফররত ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং এর উপস্থিতিতে এই সমঝোতা স্বারক সই হয়। পরে পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক বলেন, ভুটানের প্রধানমন্ত্রীর এই সফরের মধ্য দিয়ে দুই দেশেরর সম্পর্ক আরো গভীর হবে। বিবিআইএন কার্যকর করতে ভুটান সরকার আন্তরিকভাবে কাজ করবে বলেও জানান তিনি।

ঢাকায় সফররত ভুটানের প্রধানমন্ত্রী ডাঃ লোটে শেরিং এর দ্বিতীয় দিনের ব্যস্ততা শুরু হয় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে। শনিবার সকাল ১০টার দিকে শেরিং ও তাঁর সফর সঙ্গীদের কার্যালয়ের টাইগার গেটে স্বাগত জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আপ্যায়ন পর্ব শেষে একান্তে বৈঠক করেন বন্ধুপ্রতিম দু’দেশের দুই শীর্ষ নেতা। পরে, কার্যালয়ের চামেলি ভবনে শুরু হয় বাংলাদেশ- ভুটান দ্বিপাক্ষিক বৈঠক। পারস্পরিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়। দু’দেশের প্রধানমন্ত্রী নিজ নিজ দেশের নেতৃত্ব দেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং এর উপস্থিতিতে অভ্যন্তরীণ কার্গো চলাচল সহযোগিতা, স্বাস্থ্য খাতে বাংলাদেশ থেকে ভুটানে অভিজ্ঞ চিকিৎসক নেয়া, কৃষিতে সহযোগিতা, সরকারি কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ এবং পর্যটন খাতের উন্নয়নে পাঁচটি সমঝোতা স্মারক সই হয়। দুই প্রধানমন্ত্রীর বৈঠকে, অটিস্টিক, আঞ্চলিক যোগাযোগ বাড়াতে ট্রানজিট, ভুটান থেকে ভারত হয়ে বিদ্যুৎ আমদানিসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে বলে জানান, পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক। আওয়ামী লীগ টানা তৃতীয় মেয়াদে সরকার গঠনের পর, প্রথম সরকার প্রধান হিসাবে ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং বাংলাদেশ সফরে আসেন ।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন