ভারত থেকে বাংলাদেশ সবচে বেশি পোশাক তৈরির উপকরণ আমদানি করে থাকে

0

ভারত থেকে বাংলাদেশ সবচে বেশি পোশাক তৈরির উপকরণ আমদানি করে থাকে। কিন্তু বাংলাদেশ থেকে ভারতে রপ্তানীর ক্ষেত্রে বন্দর, পণ্য পরীক্ষা ও বকেয়াসহ যেসব প্রতিবন্ধকতা রয়েছে সেগুলো দুর করা না গেলে দু’দেশের বাণিজ্য ক্ষতিগ্রস্ত হবে। বিকেলে বিজিএমইএ ভবনে ভারতীয় বাণিজ্য প্রতিনিধিদলের সঙ্গে এক বৈঠকে এসব মন্তব্য করেছেন বিজিএমইএ সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান। এসময় প্রতিনিধিদল এই বৈঠকের মধ্যদিয়ে দু’দেশের বাণিজ্য সম্পর্ক আরো সুদৃঢ় হওয়ার আশা জানান।

সূতা, ফেব্রিক্সসহ পোশাক তৈরির গুরুত্বপূর্ণ উপকরণগুলোর ৫০ ভাগই ভারত থেকে আমদানি করে বাংলাদেশ। বিপরীতে বাংলাদেশ মাত্র ২৭৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের পোশাক রপ্তানী করে ভারতে। তবে এই রপ্তানীর ক্ষেত্রেও নানা প্রতিবন্ধকতার মুখোমুখি হতে হয় বাংলাদেশী ব্যবসায়ীদের। বিশেষ করে বেনাপোল এবং পেট্টাপোল বন্দরে শুল্ক জটিলতা, ভারতীয় বন্দরে বাংলাদেশি পণ্য পরীক্ষার সনদ গ্রহণ না করা এবং ভারতীয় আমদানিকারকদের কাছে অর্থ বকেয়া।

বাংলাদেশে আসা ভারতের ২৫ সদস্যদের ব্যবসায়িক প্রতিনিধিদলের কাছে এসব সমস্যা তুলে ধরেন বিজিএমইএ সভাপতি। তিনি বলেন, দু’দেশের বাণিজ্য সম্প্রসারণের ক্ষেত্রে এসব সমস্যার সমাধান জরুরি। এসময় ভারতীয় দূতাবাসে প্রধান চ্যাঞ্চেরি কর্মকর্তা এবং প্রতিনিধিদলের প্রধান– এই বৈঠকের মধ্যদিয়ে দু’দেশের সম্পর্ক আরো জোরদার হওয়ার ব্যাপারে আশাবাদ জানান। সভায় বিজিএমইএ সভাপতি জানান, গতবছর বাংলাদেশ ৩০ দশমিক ছয় এক বিলিয়ন ডলারের পোশাক বিদেশে রপ্তানী করেছে।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন