বিষমুক্ত রসালো ও স্বাদযুক্ত মাল্টা চাষে আগ্রহ বাড়ছে কৃষকদের

0

বরিশালে বিষমুক্ত রসালো ও স্বাদযুক্ত মাল্টা চাষে আগ্রহ বাড়ছে কৃষকদের। রোগ-বালাই না থাকা আর ভালো লাভ হওয়ায়, নতুন নতুন কৃষকরা এগিয়ে আসছেন। ১০ বছর আগে হাতেগোনা কয়েকটি মাল্টা বাগান ছিল, সেখানে চলতি বছর দেড়শ’হেক্টর জমিতে ১ হাজার ১৯২ মেট্রিক টন মাল্টা আবাদ হয়েছে। যার বাজার মূল্য সাড়ে সাত কোটি টাকা। আগামী বছর দ্বিগুন মাল্টা উৎপাদনের আশা করছে কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তর।

বরিশাল বিভাগের ছয় জেলা মধ্যে মাল্টা উৎপাদনে সবচে এগিয়ে পিরোজপুর। এবার এখানে ৯৫ হেক্টরে ১ হাজার ৫৩ মেট্রিক টন মাল্টা উৎপাদন হয়েছে। বরিশালে ২৬ হেক্টর জমিতে ৫২ মেট্রিক টন, ভোলায় ১৬ হেক্টরে ৩৫ মেট্রিক টন, ঝালকাঠির ১১ ও বরগুনার ১০ হেক্টরে ২০ মেট্রিক টন করে এবং পটুয়াখালীর ৬ হেক্টর জমিতে ১২ মেট্রিক টন মাল্টা উৎপাদন হয়েছে।

দেড়শ’টাকা কেজি দরে উৎপাদিত মাল্টার বাজার মূল্য সাড়ে ৭ কোটি টাকা। আর এ মূল্যে ধ্স না নামলে, চারভাগের তিন ভাগই লাভ হিসেবে পাওয়ার খুশি কৃষকরা। এজন্যই মাল্টার আবাদ বাড়ছে বলে জানান তারা।

লাভজনক হওয়ায় স্থানীয় পর্যায়ে কৃষকরা মাল্টা উৎপাদনে আগ্রহী হচ্ছে বলে জানান উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা।

কৃষি বিভাগের মতে, স্বল্প ব্যয়ে অধিক লাভের সুযোগ সৃষ্টি করেছে মাল্টা আবাদ। মাল্টা চাষীরা মনে করেন, আবাদ বাড়তে থাকলে, বিদেশ থেকে আমদানির প্রয়োজন হবে না।

বাতাবী লেবু গাছে কলম করে বারি-১ জাতের মাল্টা গাছ কৃষকদের মাঝে বিতরণ হচ্ছে।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন