তীব্র শীতে কাপছে ঝালকাঠির জনপদ

0

তীব্র শীতে কাপছে ঝালকাঠির জনপদ। শৈত্য প্রবাহ, প্রচন্ড ঠান্ডা ও ঘণ কুয়াশায় ঠান্ডাজনিত রোগের প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। কয়েক দিন ধরে জেলা সদর হাপাতালে অনেক শিশু ও বয়স্ক রোগী ভর্তি হয়েছে। দীর্ঘ দিন ধরে শিশু বিশেষজ্ঞ না থাকায় ভোগান্তি বেড়েছে।

গত কয়েক দিনে জেলার সর্বনিন্ম তাপমাত্রা ১০ থেকে ১২ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। ঠান্ডায় সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হচ্ছে শিশু এবং বৃদ্ধ। চিকিৎসকরা জানিয়েছে, গত দুই দিনে জেলার চারটি হাসপাতালে দু’শতাধিক রোগী ঠান্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসা নিয়েছে। এর মধ্যে শিশু ও বয়স্কদের সংখ্যা বেশি। বেশিরভাগই নিউমোনিয়া, আমাশয়, জ্বর ও সর্দিকাশিতে আক্রান্ত হয়েছে। এছাড়াও বেড়েছে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসা রোগীরা হাসপাতাল থেকে ঔষুধ পাচ্ছে না বলে অভিযোগ রয়েছে। এছাড়া শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক না থাকায় সঠিক চিকিৎসা সেবা পাচ্ছে না শিশুরা।

ঝালকাঠির সিভিল সার্জন শ্যামল কৃষ্ণ হাওলাদার জানিয়েছেন, শিশু বিশেষজ্ঞের প্রয়োজনীয়তার কথা উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। সদর হাসপাতালে দ্রুত একজন শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ নিয়োগ দিবে কর্তৃপক্ষ এমনটা প্রত্যাশা ঝালকাঠিবাসীর।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন