ছাত্র রাজনীতিকে জাতীয় রাজনীতি থেকে দূরে সরিয়ে আনতে হবে

0

ছাত্র রাজনীতিকে জাতীয় রাজনীতি থেকে দূরে সরিয়ে আনতে হবে। দলের সাংগঠনিক নিয়ন্ত্রণ থেকে মুক্ত হতে পারলে, এ দেশের ছাত্র রাজনীতি এগিয়ে যাবে। সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবে ছাত্র রাজনীতি নিয়ে আয়োজিত এক গোলটেবিল বৈঠকে বক্তারা এসব কথা বলেন। সুশাসনের জন্য নাগরিক-সুজন আয়োজিত বাংলাদেশের ছাত্র রাজনীতি ও প্রাসঙ্গিক ভাবনা শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে ডাকসুর সাবেক ও বর্তমান ভিপি এবং সাবেক ছাত্রনেতারা বক্তব্য রাখেন।

৫২’র ভাষা আন্দোলন, ৫৪’র যুক্তফ্রন্ট, ৬৬’র ৬ দফা, উনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান ও ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে বাংলাদেশের ছাত্র রাজনীতির ভূমিকা সবচে বেশি। সাম্প্রতিক সময়ে নিরাপদ সড়ক ও কোটা সংস্কার আন্দোলনসহ বেশ কটি ইতিবাচক ঘটনার সাথে আবরারের হত্যাকাণ্ডের মত নেতিবাচক ঘটনায় আবারো ছাত্র রাজনীতি নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। ছাত্র রাজনীতির প্রাসঙ্গিকতা নিয়ে সাবেক ও বর্তমান ছাত্রনেতাদের পাশাপাশি কথা বলেছেন বিভিন্ন সংগঠনের নেতারাও।

ডাকসুর বর্তমান ভিপি নূরুল হক নূরু বলেন, নব্বইয়ের পর শুধুমাত্র দলীয় লেজুড়বৃত্তি ছাড়া দেশে ছাত্র রাজনীতিতে কিচ্ছু হয়নি।

ডাকসুর সাবেক ভিপি মাহমুদুর রহমান মান্না ও রাকসুর সাবেক ভিপি আবু সাইয়িদ ছাত্র রাজনীতিকে জাতীয় রাজনীতির কবল থেকে মুক্ত করার আহ্বান জানান।

আসম আব্দুর রব বলেন, সরকার নিজেদের পাপ আড়াল করতে ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে চাচ্ছে। সিপিবির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিমও একই মত দেন।

আর রাশেদ খান মেনন বলেন, দলের সাংগঠনিক নিয়ন্ত্রণ থেকে মুক্ত হতে পারলে এ দেশের ছাত্র রাজনীতি এগিয়ে যাবে।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন