কোটা বাতিল হলেও প্রতিবন্ধীসহ অন্যদের জন্য হবে বিশেষ নীতিমালা

0

সরকারি চাকরিতে কোটা পদ্ধতি বাতিল হলেও সবক্ষেত্রে প্রতিবন্ধী ও ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠির অধিকার সুরক্ষায় বিশেষ নীতিমালা করছে সরকার। প্রতিবন্ধী দিবসের আলোচনায় একথা জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রতিবন্ধীদের অবহেলা না করে তাঁদের সম্পদে পরিণত করার ওপর জোর দেন, তিনি।

সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের হিসাব অনুযায়ী, দেশে প্রতিবন্ধী মানুষের সংখ্যা এক কোটি ৬০ লাখেরও বেশি। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে বড় এ জনগোষ্ঠি পিছিয়ে থাকার সুযোগ নেই। তাই এবারের প্রতিবন্ধী দিবসের প্রতিপাদ্য “সাম্য ও অভিন্ন যাত্রায় প্রতিবন্ধীর মানুষের ক্ষমতায়ন’।

২৭তম আন্তর্জাতিক ও ২০তম জাতীয় প্রতিবন্ধী দিবসে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে যোগ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শারীরিক অক্ষমতাকে জয় করা সফল প্রতিবন্ধীদের হাতে সম্মাননা পুরস্কার ও ক্রেস্ট তুলে দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷

প্রতিবন্ধীদের সমাজ ও দেশের অবিচ্ছেদ্য অংশ উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তাঁদেরকে বোঝা নয়, দেশের সম্পদে পরিণত করতে হবে। জানান, আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পরই প্রতিবন্ধীদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছে।

প্রতিবন্ধীদের বেড়ে ওঠার জন্য দক্ষ প্রশিক্ষণ ব্যবস্থার ওপর জোর দেন সরকার প্রধান। বলেন, প্রতিবন্ধীদেরকে উন্নয়নের মূলধারায় সম্পৃক্ত করতে প্রয়োজনীয় সব কিছুই করবে সরকার।

আন্দোলনের জন্য সরকারি চাকুরী থেকে কোটা বাতিল করা হলেও, প্রতিবন্ধী এবং ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীসহ সমাজের পিছিয়ে পড়া জনগণের অধিকার সুরক্ষায় বিশেষ নীতিমালার কথাও জানান প্রধানমন্ত্রী।

সমাজের কোনো শ্রেণীর মানুষ সুবিধাবঞ্চিত থাকবে না দাবি করে বিত্তশালীদের সাহায্যের মানসিকতা নিয়ে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।
ফারজানা শোভা, এসএ টিভি, ঢাকা।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন