কথিত বন্দুকযুদ্ধে পুলিশের অস্ত্র লুট মামলার আসামি নিহত

0

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় কথিত বন্দুকযুদ্ধে পুলিশের অস্ত্র লুট মামলার আসামি এবং ফেনীর দাগনভূঞায় ধর্ষণ মামলার আসামী নিহত হয়েছে।

গেল রাতে আলামিন নগর এলাকায় ছিনতাইকারীদের দু’পক্ষের মধ্যে গোলাগুলির খবর পেয়ে অভিযান চালায় পুলিশ। পরে পুলিশের একটি টিম সেখানে গেলে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে ছিনতাইকারীরা। এ সময় পুলিশও পাল্টা গুলি ছোঁড়ে। এরপর ত্রিপক্ষীয় গোলাগুলিতে মধ্যে সেখানেই নিহত হয় পারভেজ। এসময় ঘটনাস্থল থেকে ২ রাউন্ড গুলিভর্তি রিভলবার ও ৩টি ছোরা উদ্ধার করা হয়। গত ১৩ মে রাতে ফতুল্লা রেলস্টেশন রোড এলাকায় ডিউটিরত কনস্টেবল সোহেল রানার সঙ্গে থাকা একটি চাইনিজ রাইফেল খোয়া যায়। এ ঘটনায় পারভেজসহ তিনজনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছিলো।

এদিকে, ফেনীর দাগনভূঞার খুশিপুরে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে মুছা আলম মাসুদ নামে এক যুবক নিহত হয়েছে। পুলিশ জানায়, গেল রাতে ধর্ষণ মামলার আসামী মুছা আলমকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে অন্য আসামীদের গ্রেপ্তার করতে রাতে অভিযান চালানো হয়। এসময় জায়লস্কর ইউনিয়নের খুশিপুর ব্রিজের কাছে পৌঁছালে মুছা আলমের সহযোগীরা তাকে ছিনিয়ে নিতে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। এতে মুছা আলম গুলিবিদ্ধ হয়। পরে তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন