এতিমের টাকা মারলে যে শাস্তি পেতে হয় খালেদার বিরুদ্ধে রায়ের মাধ্যমে প্রমাণিত

0

এতিমের টাকা মেরে খেলে যে শাস্তি পেতে হয়, তাই আজ খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে রায়ের মাধ্যমে প্রমাণিত হয়েছে। এমন মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দুর্নীতিবাজ, হত্যাকারীরা আর দেশের ক্ষমতায় আসবে না বলেও মন্তব্য করেন তিনি। বরিশালে বঙ্গবন্ধু উদ্যানের জনসভায় আসছে ডিসেম্বরের নির্বাচনে, আবারো আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন জোটকে ভোট দেয়ার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী।

দীর্ঘ ছ’বছর পর ধান-নদী-খালের অঞ্চল বরিশালে এলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাই কেবল নগরবাসীই নয়, আশপাশের জেলা থেকেও নৌকা-ব্যানার-ফেস্টুনের মিছিল নিয়ে বঙ্গবন্ধু কণ্যাকে একনজর দেখতে আসেন, হাজারো নেতা-কর্মী। বিকেল নাগাদ বঙ্গবন্ধু উদ্যান পরিণত হয় জনসমুদ্রে। প্রধানমন্ত্রী প্রথমেই বরিশাল নগরী ও জেলায় ৭২টি উন্নয়নমূলক প্রকল্পের উদ্বোধন ও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। এরপর, মুক্তিযুদ্ধে আহতদের সেবা ও জনসেবামূলক কাজের স্বীকৃতি হিসেবে, বৃটিশ নাগরিক লুসি হল্টের হাতে ভিসাসহ পাসপোর্ট তুলে দেন শেখ হাসিনা।

আনুষ্ঠানিক নির্বাচনী প্রচারনার এই দ্বিতীয় সফরে, আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা বলেন, আইন সবার জন্য সমান। এতিমের টাকা মেরে খেলে– শাস্তি পেতেই হবে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, মানুষের উপর অত্যাচার করলে– তার বিচার পেতেই হয়। সরকার খালেদা জিয়ার দুর্নীতি মামলার বিচারকে প্রভাবিত করেনি বলেও তাঁর দাবি।

ভোলার গ্যাস আশেপাশের জেলায় ব্যবহারের জন্য অবকাঠামো নির্মাণের আশ্বাস দিয়ে সরকার প্রধান বলেন, তার লক্ষ্য– এদেশকে উন্নত করা। দেশের উন্নয়নে, নৌকার ধারাবাহিকতা রক্ষার ওয়াদা চান বরিশালবাসীর কাছে। জঙ্গিবাদ, মাদক ও সন্ত্রাস থেকে সন্তানদের রক্ষা করতে বিশেষ নজর দিতে অভিভাবকদের প্রতি আহ্বানও জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন