ইউনেস্কোর শর্ত মেনেই রামপালে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কাজ চলবে

0

ইউনেস্কোর শর্ত মেনেই রামপালে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কাজ চলবে বলে জানিয়েছেন, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি উপদেষ্টা– ড. তৌফিক ই এলাহী চৌধুরী। ইউনেস্কোর দাবি অনুসারে, পরিবেশ সুরক্ষা সম্পর্কিত প্রতিবেদন তাদের দেয়া হবে। রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র এবং ইউনেস্কোর আপত্তি তুলে নেয়ার বিষয়ে, সকালে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে, প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ ও জ্বালানি বিষয়ক উপদেষ্টা আরো জানান, প্রকল্পটির প্রথম ইউনিটের কাজ ২০১৯ সালের জুনে শেষ হবে।

রামপালে বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ হলে, আশপাশের পরিবেশ ঝুঁকিতে থাকবে– এমন আশংকা থেকে এটি নির্মাণে আপত্তি জানিয়েছিলো, জাতিসংঘের শিক্ষা ও বিষয়ক সংস্থা- ইউনেস্কো। মাত্র একদিন আগে, সেই আপত্তি তুলে নিয়ে– সংস্থাটি পরিবেশ সুরক্ষা সর্ম্পকে একটি প্রতিবেদন জমা দিতে বলে সরকারকে।

জবাবে সরকার জানায়, খুব কম কার্বন নিঃস্বরণ হবে এই প্রকল্প থেকে। পশুর নদীসহ আশপাশের এলাকায় নাব্যতা বাড়াতে ইউনেস্কোর দাবি অনুসারে, ড্রেজিং করা হবে। সংবাদ সম্মেলনে জ্বালানি উপদেষ্টা বলেন, ইউনেস্কোর সব শর্ত মেনেই এই প্রকল্পে এগিয়ে যাচ্ছে সরকার। তিনি বলেন, রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র ও এর আশপাশে কোনো বড় স্থাপনা তৈরি করা যাবে না বলে শর্ত দিয়েছে ইউনেস্কো। এতে নিজের যুক্তিও দেন, তৌফিক ই এলাহী।

এখনো প্রকল্পটির পাশে দেড়শ’টিরও বেশি কলকারখানার কাজ চললেও, ভবিষ্যতে সেখানে আর বড় স্থাপনা নির্মাণ হবে না বলে জানান, প্রধানমন্ত্রীর এই উপদেষ্টা।

 

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন