অনলাইনে ভ্যাট আদায় প্রকল্প গতি পাচ্ছে না

0

পর্যাপ্ত লোকবলের অভাব ও অনলাইনে ভ্যাট রেজিস্ট্রেশনে আবেদনকারীদের ত্রুটিপূর্ণ আবেদনের কারণে অনলাইনে ভ্যাট আদায় প্রকল্প গতি পাচ্ছে না। সেই সাথে ভ্যাটদাতাদের ইলেকট্রনিক ফিসক্যাল ডিভাইস- ইএফডি মেশিন সরবরাহে বিলম্বের কারণে নতুন ভ্যাট আইন বাস্তবায়নে বিলম্ব হচ্ছে। ভ্যাট পরামর্শকদের মতে, নতুন ভ্যাট আইন ও অনলাইনে ভ্যাট পরিশোধে আরো ব্যাপক প্রচার-প্রচারণার প্রয়োজন।

কয়েকদফা বাস্তবায়নের সময় নির্ধারণ করেও ব্যবসায়ীদের আপত্তিসহ নানা জটিলতায় ২০১২ সালের নতুন ভ্যাট আইন ৭ বছর পর, চলতি অর্থবছর থেকে কার্যকর হয়েছে। এ আইনের আওতায় প্রত্যেক ভ্যাট প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানকে অনলাইনে ভ্যাট পরিশোধ করতে হবে। ফলে কমবে দুর্নীতি, আর বাড়বে সরকারের রাজস্ব।

কিন্তু ভ্যাট আইন বাস্তবায়ন শুরু হলেও এখনো প্রয়োজনীয় সক্ষমতা আর পর্যাপ্ত লোকবলের অভাবে ভ্যাট রেজিস্ট্রেশনের বিপরীতে অনলাইনে সনাক্তকরণ নম্বর দেয়া সম্ভব হচ্ছে না। তবে প্রকল্প পরিচালক বলছেন, ধীরগতির মূলে রয়েছে ত্রুটিপূর্ণ আবেদন। আরো দু’বছর আগে থেকে অনলাইনে ভ্যাট রেজিষ্ট্রেশন শুরু হলেও এখনো বাইরে রয়েছে কয়েক লাখ প্রতিষ্ঠান। তবে ভ্যাট পরামর্শকরা এজন্য দুষছেন যথাযথ প্রচারণার অভাবকে।

ভ্যাট আদায়ে স্বচ্ছতার জন্য আয়ের হিসাব পর্যবেক্ষণে প্রত্যেক ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানকে এখনো ইএফডি মেশিন সরবরাহ করা সম্ভব হয়নি। দু’ বছরেও হাতে আসেনি প্রতিশ্রুত এক লাখ মেশিনের একটিও। বার্ষিক ৫ কোটি টাকা বা তার বেশি লেনদেন হলেই প্রতিষ্ঠানের বিক্রয় তথ্য এনবিআর অনুমোদিত সফটঅয়্যারে সংরক্ষণের নির্দেশনা দিয়েছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড। এ লক্ষ্যে ১১টি সফটওয়্যার কোম্পানিকে নির্দিষ্ট করে দেয়া হয়েছে।

শেয়ার করুন।

উত্তর দিন